ঢাকা,৩০শে জুন, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ | ১৬ই আষাঢ়, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

বঙ্গবন্ধু হত্যাকারীদের মরণোত্তর বিচার আইন প্রণয়নের দাবীতে বঙ্গবন্ধু ফাউন্ডেশন সিলেট মহানগরের স্মারকলিপি

received_596408924696436.jpeg

স্বাধীনতার মহান স্থপতি, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ও তার পরিবারের শহীদ সদস্যদের হত্যার নেপথ্য ষড়যন্ত্রকারীদের তথ্য উদঘাটনে তদন্ত কমিশন গঠন এবং দোষীদের বিচার সহ মরণোত্তর বিচার আইন প্রণয়নের দাবীতে সিলেটের জেলা প্রশাসকের মাধ্যমে আইনমন্ত্রী ও স্বররাষ্ট্র মন্ত্রী বরাবরে স্মারকলিপি প্রদান করেছেন বঙ্গবন্ধু ফাউন্ডেশন সিলেট মহানগর শাখার নেতৃবৃন্দ।
গতকাল ২৫ বুধবার সকালে ফাউন্ডেশনের নেতৃবৃন্দ জেলা প্রশাসক এম কাজী এমদাদুল ইসলামের কাছে স্মারকলিপি প্রদান করেন। এ সময় উপস্থিত ছিলেন বঙ্গবন্ধু ফাউন্ডেশন সিলেট মহানগর শাখার ভারপ্রাপ্ত সভাপতি আলী আক্তার উজ জামান বাবুল, সাধারণ সম্পাদক বদরুল ইসলাম লস্কর রাজু, যুগ্ম সম্পাদক আজাদ হোসেন, সাংগঠনিক সম্পাদক আব্দুল কাদির চৌধুরী, প্রচার সম্পাদক অরুপ রায়, মহিলা বিষয়ক সম্পাদক তসলিমা বেগম, ফাউন্ডেশনের নেতার রেদওয়ান আহমদ চৌধুরী, ডাঃ রণজিৎ রায়, ৩নং ওয়ার্ডের যুগ্ম সম্পাদক সৈয়দ ফেরদৌস আহমদ, ২১নং ওয়ার্ডের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি নুরুল হক, সাধারণ সম্পাদক নাসরিন উর্মী, ২৪নং ওয়ার্ডের সভাপতি সাজ্জাদ আহমদ, ৮নং ওয়ার্ডের সাধারণ সম্পাদক অভিজিৎ পাল, ১৫নং ওয়ার্ডের সাধারণ সম্পাদক আব্দুল হান্নান, বঙ্গবন্ধু ছাত্র ফাউন্ডেশনের সভাপতি ওয়াহিদুজ্জামান সানি, সহ সভাপতি মাহদি জয়, আবেদ হোসাইন, সাধারণ সম্পাদক ইদ্রিস রহমান, ছাত্রনেতা সাকি চৌধুরী, সুজন আহমদ, সৌরভ আহমদ, রাজন, সুজন সরকার, ইমন আহমদ, রায়হান আহমদ, পিয়াল, রূহান, রাজ, বাবুল, সামাদ, কাইয়ুম, বিজিত প্রমুখ।
স্মারকলিপিতে বলা হয়, ১৯৭৫ সালের ১৫ই আগস্ট কালরাত্রিতে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান সহ তাঁর পরিবারের সদস্যদের নির্মম ভাবে হত্যা করা হয়। নারকীয় হত্যাকান্ডের সম্মুখসারির খুনিদের বিচার করা হলেও ষড়যন্ত্রকারী ও পরিকল্পনাকারী এবং নির্দেশদাতাদের কোন বিচার হয়নি বা সে বিষয়ে কোন তদন্তও হয়নি। জাতির উপর লেপিত ১৫ই আগস্টের কলংক মোচনের জন্য উল্লেখিত ষড়যন্ত্রকারী ও পরিকল্পনাকারীদের বিচার হওয়া আবশ্যক। সে লক্ষ্যে প্রকৃত তথ্য উদযাটনের জন্য উপযুক্ত নিরপেক্ষ তদন্ত হওয়া প্রয়োজন।
স্মারকলিপিতে ১৫ আগস্ট রাতের সকল হত্যাকান্ডের নেপথ্যে ষড়যন্ত্রকারী ও পরিকল্পনকারীদের চিহ্নিত করে বিচারের আওতায় আনার জন্য একটি শক্তিশালী কমিশন গঠনসহ মরণোত্তর বিচার আইন প্রণয়নের জন্য বাংলাদেশ সরকারের নিকট জোর দাবী জানানো হয়। বিজ্ঞপ্তি

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

scroll to top