ঢাকা,২৯শে নভেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ | ১৪ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

তুরুকখলা হাড়িয়ারচররের প্রধান সড়কে জলাবদ্ধতা, দূর্ভোগ পোহাচ্ছেন গ্রামবাসী

received_183033340566776.jpeg

আব্দুল খালিক ঃ দেখে মনে হচ্ছে বন্যার কারণে সড়ক ডুবে পানিতে থৈ থৈ করছে। আসলে তাই নয়, বৃষ্টির পানি জমা হয়ে ডুবে আছে গ্রামের প্রধান সড়ক। এতে জলাবদ্ধতা সৃষ্টি হয়ে জনদূর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে জনসাধারণকে। কষ্ট ও জলাবদ্ধ থেকে মুক্তি পেতে কর্তৃপক্ষের সুদৃষ্টি কামনা করেছেন তুরুকখলা হাড়িয়ারচর গ্রামবাসী।
সিলেটের দক্ষিণ সুরমা উপজেলার মোগলাবাজার থানাধীন দাউদপুর ইউনিয়নের ২নং ওয়ার্ডের তুরুকখলা হাড়িয়ারচর গ্রামের প্রধান সড়ক বৃষ্টি হলেই জলাবদ্ধতা সৃষ্টি হয়।
পানি নিষ্কাশনের ব্যবস্থা না থাকায় প্রতিনিয়ত দূর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে গ্রামবাসীকে। ময়লা-আবর্জনা পানির উপর দিয়ে কয়েক’শ পথচারী, স্কুল-কলেজ, মাদরাসা ও গ্রামের মুসল্লীগণ মসজিদে নামাজ আদায় করতে এই সড়ক দিয়ে যাতায়াত করেন। ময়লা পানি দিয়ে যাতায়াত করার কারণে অনেকেই অসুস্থ হচ্ছেন।
সড়কের পাশে ড্রেনেজ-ব্যবস্থা থাকলে বৃষ্টি হলেই পানি জমে না থেকে চলে যেত, এতে দূর্ভোগে পড়তেন না গ্রামবাসী। কর্তৃপক্ষের নজরদারির অভাবে এমন দূর্ভোগের শিকার হচ্ছেন বলে গ্রামবাসী দাবি করে বলেন, দাউদপুর ইউনিয়নের বরাদ্দকৃত অর্থায়নে এই সড়কের কাজ হয়েছে, সড়কের রক্ষণা-বেক্ষণের দায়িত্ব ইউনিয়ন পরিষদের।
কিন্তুু সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের অবহেলা আর অযত্নের জন্য সড়কটি নষ্ট হয়ে যাচ্ছে।
জলাবদ্ধতায় সড়ক যাতে নষ্ট না হয় দ্রুত সময়ের মধ্যে ড্রেইন নির্মাণ করে পানি নিষ্কাশনের ব্যবস্থা করে দেওয়ার জন্য কতৃপক্ষের প্রতি জোর দাবি জানিয়েছেন তুরুকখলা হাড়িয়ারচর গ্রামবাসী।
আলাপকালে দাউদপুর ইউনিয়ন পরিষদের প্যানেল চেয়ারম্যান কামরুল ইসলাম মেম্বার বলেন, জলাবদ্ধতা সড়কটি আমি সরজমিন পরিদর্শন করছি, গ্রামবাসী অনেক কষ্ট ও জনদূর্ভোগের মধ্যে আছেন। বিষয়টি নিয়ে আমি চেয়ারম্যানের সাথে আলোচনা করে দ্রুত সময়ের মধ্যে ড্রেইন নির্মাণ করে পানি নিষ্কাশনের ব্যবস্থা করব ইনশাআল্লাহ।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

scroll to top